September 21, 2020

এ পি জে আবদুল কালাম

এ পি জে আবদুল কালাম – আল মামুন

ভূমিকা : ড. এ পি জে আবদুল কালামকে আমরা দেখি একজন সফল রাষ্ট্রনায়ক হিসেবে, একজন প্রথিতযশা বিজ্ঞানী হিসেবে, একজন প্রতিভাধর প্রকৌশলী হিসেবে, একজন প্রকৃত দার্শনিক হিসেবে, একজন বিরল গুণসম্পন্ন মানবতাবাদী হিসেবে। সর্বোপরি সবক্ষেত্রে একজন সফল ব্যক্তি হিসেবে এবং জনগণের একজন অসাধারণ নেতা হিসেবে। এ ধরনের বৈশিষ্ট্য অর্জনকারী ব্যক্তি মানব ইতিহাসে খুবই বিরল। ড. কালাম শুধু ভারতেরই নন— তিনি গোটা বিশ্বের জন্য অনুকরণীয় ব্যক্তিত্ব।

এমন মহান ব্যক্তিত্বকে নিয়ে কোনো কিছু লেখা একই অনেক কঠিন কাজ এবং সৌভাগ্যেল ব্যাপার। আমাকে এই কাজ করার সুযোগ করে দিয়েছেন জীবনীগ্রন্থ প্রকল্পের পরিচালক ড. মিজান রহমান। ড. কালামের জীবনী সংকলনের দায়িত্ব দেওয়ায় তার কাছে অশেষ কৃতজ্ঞতা। এবং সাংবাদিক, লেখক ফকরুল চৌধুরী এই বই লিখতে আমাকে বিশেষভাবে অনুপ্রেরণা জুগিয়েছেন, তাকেও অসংখ্য ধন্যবাদ।

ড. কালামের এই ‘সংক্ষিপ্ত জীবনী সংকলন’ করতে গিয়ে তাঁর লেখা বিভিন্ন বই এবং ইন্টারনেটের সহযোগিতা নেওয়া হয়েছে। বিভিন্ন জায়গা থেকে তথ্য-উপাত্ত সংগ্রহ করতে গিয়ে তথ্যের বিভিন্ন গড়মিল বা অপূর্ণাঙ্গতা থেকে যেতে পারে, বা ভুলত্রুটি হতে পারে। সংকলিত গ্রন্থের ক্ষেত্রে এমনটি হওয়া স্বাভাবিক। এক্ষেত্রে আমি পাঠকদের সবিনয় অনুরোধ করবো— এই বই পড়তে গিয়ে যদি কোনো রকমের অসঙ্গতি চোখে পড়ে বা তথ্যের অসম্পূর্ণতা মনে হয়, নিঃসঙ্কোচে জানাবেন। আমরা তা পরবর্তী সংস্করণে শুধরে দেবো; পরিবর্তন বা পরিবর্ধন করতে সচেষ্ট থাকবো।

সব শেষে যে কথা বলতে চাই— এ পি জে আবদুল কালাম শুধু একজন ব্যক্তি-মানুষ নন, কিংবা একজন বিজ্ঞানী বা শিক্ষক নন। ড. কালাম পুরোপুরি একটি ইনস্টিটিউট। যে ইনস্টিটিউট জ্ঞানে-বিজ্ঞানে, স্বপ্নে-প্রেরণায় সমৃদ্ধ। তাঁকে নিয়ে লেখা এই বই তাঁর গোটা জীবনের সারসংক্ষেপ মাত্র। অতএব সমৃদ্ধ একটি ইনস্টিটিউটের সকল কর্মকাণ্ড ছোট একটি বইয়ে স্থান দেওয়া সম্ভব নয়। এই বইয়ে স্বল্প পরিসরে তাঁর জীবন, কর্ম এবং দর্শন তুলে ধরার চেষ্টা করা হয়েছে মাত্র। পাঠকরা এই বইয়ে ড. কালাম সম্পর্কে প্রাথমিক একটা ধারণা পেতে পারেন। পূর্ণাঙ্গ ড. কালামকে জানতে হলে বা বুঝতে হলে পড়তে হবে তাঁর লেখা সব বই, তাঁকে নিয়ে লেখা সব বই।

আল মামুন
এপ্রিল ২০১৭
গ্রীণ রোড, ঢাকা

সূচিপত্র (পড়তে বিষয়ের ওপর ক্লিক করুন)

প্রথম অধ্যায়
ভূমিকা
জন্ম ও বেড়ে ওঠা
শিক্ষাদীক্ষা
কর্মজীবন
পুরস্কার ও সম্মাননা

দ্বিতীয় অধ্যায়
শৈশবেই অসাম্প্রদায়িকতার পাঠ
বোনের গহনা বন্ধক রেখে এমআইটিতে ভর্তি
সৃষ্টিকর্তার প্রতি অগাধ বিশ্বাস
মা-বাবা যার আদর্শ
বদলে গেলো শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের নাম
লেখক ড. কালাম
একজন স্বপ্নবাজ
‘আই অ্যাম কালাম’
বিজ্ঞানী ও জ্ঞানসাধক
জাগতে বলতেন দেশের মানুষদের
যে চারটি বই বদলে দিয়েছিল ড. কালামের জীবন
ড. কালামের জীবনের চারটি স্টেজ
যেভাবে রাষ্ট্রপতি হলেন ড. কালাম
সাধারণ জীবন যাপন করা অসাধারণ একজন মানুষ
‘আমি শুধুমাত্র ওইগুলোই সাথে নিয়ে যাচ্ছি’
ভারত নির্মাণের রূপকার
‘অগ্নি’র স্বার্থে মন্ত্রীত্বের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান
আলোচিত উক্তি

তৃতীয় অধ্যায়
বাংলাদেশে ড. কালাম
স্বপ্ন দেখলে নিজের সঙ্গে বাংলাদেশকে নিয়েও দেখবে
ঢাকায় চাপ কমালে উন্নতি হবে গ্রামের

চতুর্থ অধ্যায়
জীবনাবসান
ড. কালামের মৃত্যুতে সাত দিনের শোক
যেখানে জন্ম সেখানেই শেষকৃত্য
ড. কালামের শেষ টুইট
ড. কালামের একটি অপূর্ণ ইচ্ছা
ড. কালামের অসমাপ্ত কাজ
উপসংহার

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *